শুক্রবার, ০৫ মার্চ ২০২১, ০৬:৪৭ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
আত্রাইয়ে ইরি-বোরো ধান পরিচর্যায় ব্যস্ত কৃষক দেখুন এই ৫ রাশির মেয়েরাই স্ত্রী হিসাবে সবচেয়ে সেরা, বিস্তারিত যে কারণে নিকটাত্মীয় ভাই-বোনদের বিয়ে ঠিক নয়, জেনে রাখা দরকার সুন্দরগঞ্জে জনবল সংকটে স্বাস্থ্য সেবা বিঘিœত ভারতে মিয়ানমারের ১৯ পুলিশের আশ্রয় প্রার্থনা মিয়ানমারের ওপর বাণিজ্যিক নিষেধাজ্ঞা যুক্তরাষ্ট্রের ৬৬০ থানায় একযোগে ৭ মার্চ উদযাপন করবে পুলিশ জাপান থেকে দেশের পথে মেট্রোরেল জেলখানায় ‘প্ল্যান’, প্রিজন ভ্যান থেকে পালালেন আসামি! শুক্রবার ঢাকার যেসব মার্কেট বন্ধ থাকবে ‘দেশেই তৈরি হবে বিলাসবহুল বাস-ট্রাক’ ডিস লাইনের তার নিয়ে শিশু ছাত্রকে পেটালেন মাদ্রাসা শিক্ষক লক্ষ্মীপুরে সড়ক খোঁড়াখুঁড়িতে গ্যাস ও বিটিসিএল লাইন বিচ্ছিন্ন যৌন হয়রানির দায়ে ডিসি অফিস সহকারীর কারাদণ্ড প্রতিবেশী দেশগুলোর সমস্যা আলোচনার মাধ্যমে সমাধান করা উচিত: প্রধানমন্ত্রী

আজই ক্রিকেটে চালু হচ্ছে অভিনব নিয়ম, ‘নো’ বল ডাকবেন তৃতীয় আম্পায়ার!

স্পোর্টস ডেস্ক: ভারত বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজের টি-টোয়েন্টি সিরিজ থেকেই অভিনব এক নিয়ম চালু করতে চলেছে আইসিসি। বৃহস্পতিবার তারা জানিয়ে দিয়েছে, এই সিরিজ থেকেই বোলারদের ফ্রন্ট ফুট নো বলের ক্ষেত্রে মাঠের আম্পায়াররা নন, সিদ্ধান্ত নেবেন তৃতীয় আম্পায়ার।

শুক্রবার হায়দ্রাবাদে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে নামছে ভারত। যে ম্যাচ থেকেই পরীক্ষামূলকভাবে এই নিয়ম চালু করতে চলেছে আইসিসি।

এক বিজ্ঞপ্তিতে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থা বলেছে, ‘পরীক্ষাস্তরে এই নিয়ম চালু হচ্ছে। টিভিতে প্রতিটা বলের উপরে নজর রাখবে তৃতীয় আম্পায়ার। তাদের উপরে দায়িত্ব থাকবে দেখার কোনও ফ্রন্টফুট নো বল হচ্ছে কি না।’
ফ্রন্টফুট নো বলের নিয়ম হল, বল ডেলিভারি করার সময় বোলারের সামনের পায়ের কোনও অংশ পপিং ক্রিজের লাইনের ভিতরে থাকতে হবে। যদি না থাকে, তা হলে সেটা নো বল। টিভি-তে সেটাই দেখবেন তৃতীয় আম্পায়ার।

যদি দেখা যায় বোলার নো বল করেছেন, তা হলে কী হবে? আইসিসি বলেছে, ‘যদি তৃতীয় আম্পায়ার দেখে ফ্রন্টফুট নো বল হয়েছে, তা হলে তিনি সঙ্গে সঙ্গে সেটা মাঠের আম্পায়ারকে জানাবেন। তৃতীয় আম্পায়ারের পরামর্শ মতো মাঠের আম্পায়ার এর পরে নো বল ডাকবেন। তৃতীয় আম্পায়ারের পরামর্শ ছাড়া মাঠের আম্পায়াররা নো বল ডাকতে পারবেন না।’

আর যদি পরিষ্কারভাবে বোঝা না যায় বোলারের পা পপিং ক্রিজের ভিতরে আছে কি না, তা হলে কী হবে? এর জবাবে আইসিসি বলছে, ‘সন্দেহের অবকাশ থাকলে নো বল ডাকা হবে না।’

এ বছরের আগস্টে সিদ্ধান্ত হয়েছিল, নো বল ডাকার ক্ষেত্রে তৃতীয় আম্পায়ারের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত হবে। আইসিসি ক্রিকেট কমিটিও সুপারিশ করে, যত বেশি সম্ভব সীমিত ওভারের ক্রিকেটে এই নিয়ম ব্যবহার করতে। এবার আইসিসি দেখতে চায়, এই নিয়ম চালু করলে ক্রিকেট উপকৃত হয় কি না। আরও একটা ব্যাপারে নজর দিতে চায় আইসিসি। এইভাবে নো বল ডাকায় যাতে ম্যাচ চলাকালীন বিশেষ সময় নষ্ট না হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

38355864
Users Today : 2507
Users Yesterday : 6146
Views Today : 9699
Who's Online : 26
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/