সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ০৭:৪৭ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
পাবনায় বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণে বিরোধিতার প্রতিবাদে স্বেচ্ছাসেবক লীগের মানববন্ধন সাইবার বুলিং ও গুজব বিরোধী সমাবেশে-বক্তারা সচেতন পিতা-মাতাই সন্তানদের উজ্জ্বল ভবিষ্যত গড়ে দিতে পারেন বাগেরহাটে মোরেলগঞ্জে শিশু আব্দুল্লাহ হত্যা মামলায় ৩ জনের যাবজ্জীবন রাজশাহীর তানোরে সুজনকে  ঘিরে চক্রব্যুহ ! স্বেচ্ছাসেবক লীগ পাবনা জেলা শাখার কমিটির অনুমোদন ডাবলু সভাপতি ও রুহুল আমিন সাধারণ সম্পাদক উলিপুরে অভাবের তাড়নায় সন্তান দত্তক দেয়া সেই গৃহবধু শেফালীকে সাহায্যানুদান প্রদান  নওয়াপাড়া প্রেস ক্লাবের সভাপতির সুস্থতা কামনায় দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত শার্শার ১১টি ইউনিয়ন চেয়ারম্যান গনের হাতে করোনা প্রতিরোধী সামগ্রী তুলেদেন এমপি শেখ আফিল উদ্দিন শার্শায় উন্নত চিকিৎসা সেবা প্রদানের লক্ষে চিকিৎসকদের মাঝে চিকিৎসা উপকরণ বিতরণ দিনাজপুর বিরামপুরে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া প্রণোদনা ঈমাম মুয়াজ্জিনদের মাঝে চেক বিতরণ করলেন ইউএনও বাগেরহাটে মোরেলগঞ্জে ঘরের অভাবে রোদ বৃষ্টির দিনলিপি এক দিনমজুরের ছাতকে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের পক্ষে ফুলের তোড়া দিয়ে মহিবুর রহমান মানিক এমপি কে অভিনন্দন জানান।। এমটিবি এবং কোয়ালিটি ফিডস্ধসঢ়; লিমিটেড (কিউএফএল)- এর মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষর ত্রিশালে মাস্ক ক্যাম্পেইন এর উদ্বোধন সাঁথিয়ায় দাবি আদায়ে কালেক্টরেট সহকারীদের সংবাদ সম্মেলন

করোনায় রোগী প্রতি ১৫ থেকে ৪৭ হাজার টাকা ব্যয় সরকারের

ঢাকা : স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, “এবারের করোনায় সাধারণ মানুষের জন্য সর্বোচ্চ সেবা দিয়ে যাচ্ছে সরকার। পরীক্ষার জন্য নামমাত্র ফি নির্ধারণ করার পাশাপাশি সরকারি হাসপাতালে করোনা চিকিৎসা ফ্রি করা হয়েছে। দেশের মানুষের জন্য এই মহামারীকালীন সময়ে সরকার সরকারিভাবে একজন সাধারণ রোগীর জন্য গড়ে সাড়ে ১৫ হাজার টাকা ও একজন আইসিইউ ইউনিটে থাকা রোগীর জন্য ৪৭ হাজার টাকা ব্যয় করেছে। এর ফলে করোনাকালীন মহামারীতে দেশের সাধারণ মানুষ ভীষণ উপকৃত হয়েছে।”

রোববার (১ নভেম্বর) দুপুরে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় কর্তৃক আয়োজিত “স্বাস্থ্য সুরক্ষা কর্মসূচি (এসএসকে) সম্পর্কে অংশীজনদের অবহিতকরণ সভায়” সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক।

সভায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানান, “শেখ হাসিনা সরকার যতবারই ক্ষমতায় এসেছে ততবারই মানুষের কল্যাণে কাজ করে গেছে। অন্যরা কেবল ঘরে বসে থেকে সমালোচনা করে গেছে। শত সমালোচনার পরও দেশের স্বাস্থ্যখাত তার কাজ ঠিকভাবেই চালিয়ে গেছে।”

সভায় করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আসলে তা মোকাবেলায় সরকার পুরোপুরি প্রস্তুত রয়েছে বলে স্বাস্থ্যমন্ত্রী উল্লেখ করেন।

মন্ত্রী এ প্রসঙ্গে বলেন, “করোনায় দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় পূর্বের সকল প্রস্তুতি ধরে রেখে কাজ করা হচ্ছে। ডেডিকেটেড হাসপাতালগুলো যেভাবে করোনার জন্য কাজ করেছে তা অব্যাহত রাখা হবে। চিকিৎসক ও নার্সদের প্রশিক্ষণ চলমান থাকবে। পিপিই দেশে পর্যাপ্ত পরিমানে রয়েছে তা ভবিষ্যতেও মজুদ থাকবে। এর পাশাপাশি জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের কমিটিগুলোকে প্রচারণা আরো বৃদ্ধি করতে বলা হয়েছে। একই সাথে কোভিড এর দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় অন্যান্য মন্ত্রণালয় ও বিভাগগুলোতেও অবগত করা হয়েছে। ইতোমধ্যেই সরকারি সেবা নিতে মাস্ক পড়া বাধ্যতামূলকও করা হয়েছে যাকে ইংরেজিতে তুলে ধরা হয়েছে- ঘড় গধংশ, ঘড় ঝবৎারপব. খুব দ্রুতই করোনা মোকাবেলায় স্বাস্থ্য সচেতনতা বৃদ্ধির জন্য ব্যাপক প্রচারণা চালানো হবে।

সভায় স্বাস্থ্য সেবায় মানুষের ব্যয় কমানো সংক্রান্ত নানা বিষয়াদি নিয়ে বিষয়ে বক্তারা আলোচনা করেন।

সভায় অন্যান্যদের মধ্যে স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মো. আবদুল মান্নান, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিবগণসহ অন্যান্য ঊর্দ্ধতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

37876435
Users Today : 1363
Users Yesterday : 2922
Views Today : 6952
Who's Online : 28
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/
Design & Developed BY Freelancer Zone