বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২১, ০৮:৫৩ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
গবে’ষণা বলছে মো’টা মানুষের মনই অনেক বেশি সুন্দর! মেয়ে’রা কে’নো বি’বাহি’ত ছে’লেদে’র প্রতি আ’কৃষ্ট হয় শী’তে বি’য়ে করলে যেসব সু’বিধা, জানলে দ্রু’ত বি’য়ে ক’রতে চা’ইবেন! এইখানে এক নদী ছিল, স্পষ্ট দেখা যায় দু’টি বয়া। ফরিদপুর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রিয়ান, সম্পাদক ফাহিম আদালতে বিচারককে ঘুষ দেয়ার চেষ্টা, এসআই ক্লোজড তানোরে সার্ভার জটিলতায় অনলাইন কার্যক্রম বন্ধ ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল রুপাকে দুদকে জিজ্ঞাসাবাদ প্রধানমন্ত্রীর কাছে মির্জা কাদেরের বিচার চান নিক্সন দীর্ঘদিনের প্রেম, বিয়ের পরের দিনই কেনো লাশ হলো তন্বী তিন স্ত্রীকে সঙ্গে নিয়ে আরেক স্ত্রীর জন্য ভোট চাইছেন তিনি শেষবারের মতো হোয়াইট হাউস ছাড়লেন ট্রাম্প শপথ নিলেন বাইডেন-কমলা জামালপুরে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে ভাইদের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন চিলাহাটি ফায়ার স্টেশন নির্মানের সোয়া দুই বছরেও চালু হয়নি কার্যক্রম

চাচাতো বোনকে সারাজীবন কাছে রাখতে নিজ স্বামীর স’ঙ্গে বিয়ে

পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের মুলতানের এক নারী ও তার স্বামী এক আজব ঘটনা ঘটিয়েছেন ।

বিয়ের পর ওই নারী তার অতি প্রিয় চাচাত বোনটিকে চোখের আড়াল করে থাকতে পারছিলেন না। তাই নিলেন এক চমকানো সিদ্ধান্ত যা মানতে পারছে না সমাজ।

দেশটির দুনিয়া নিউজ টিভি থেকে জানা যায়, ছোট বেলা থেকে তার সুখ-দুঃখের সাথী ছিল চাচাতো বোন। কিন্তু বিয়ের পর অতি প্রিয় সেই চাচাতো বোনটি চোখের আড়াল হয়ে যায়। এতে একাকিত্ব অনুভব করছিলেন।

তাই নিজের স্বামীর সঙ্গেই ওই চাচাতো বোনকে বিয়ে দিয়ে দিলেন তিনি। কিন্তু বিধিবাম- তাদের এই চকমপ্রদ সিদ্ধান্তে ক্ষেপে গেছে দুইবোনের পরিবার ও স্থানীয় সমাজের লোকজন।

পাঞ্জাব প্রদেশের মুলতানের সামিজাবাদ এলাকার ফারাজ নামে এক টিনএজার মাস দেড়েক আগে বিয়ে করেন আলিনা নামের এক তরুণীকে। এরপর নববধূ আলিনা তার চাচাতো বোন আলিস্মাকেও কয়েক সপ্তাহের মধ্যে বিয়ে দেন নিজের স্বামীর সঙ্গে।

এদিকে দুই বোনের স্বামী ফারাজ জানান, তার স্ত্রীদের স্বজনরা তাকে খুঁজছে এবং লাগাতার হ’ত্যা’র হুমকি দিয়ে আসছে। এরই মধ্যে আলিনা এবং আলিস্মার পরিবার মা’মলা করেছে তাদের স্বামী ও তাদের বিরুদ্ধে।

ঘটনা জানাজানি হলে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আলিনা বলেন, নিজের জ্ঞাতী বোনকে না দেখে থাকতে পারছিলেন না। তাই তাকে সব সময় কাছে রাখার জন্য নিজ স্বামীর সঙ্গে বিয়ে দিয়ে দিয়েছেন। তার সদ্য বনে যাওয়া সতীন আলিস্মাও বোনের সঙ্গে একই সুরে কথা বলেছেন।

আলিনা জানান, ছোটবেলা থেকে দুই চাচাতো বোন মানিকজোড়ের মতো একইসঙ্গে বেড়ে উঠেছেন, পড়েছেন একই স্কুলে। জীবনে যা কিছুই করেছেন, দু বোনে একসঙ্গে করেছেন। তাই বোনের স্মরণ তাকে অস্থির করে দিতে থাকে। এরপর আলিস্মাকেও ফারাজের বউ করে আনার সিদ্ধান্ত নেন।

অপরদিকে, আলিস্মা জানান, বোনকে ছাড়া তারও দিন কাটছিল না। অবস্থা এমন হয় যে আলাদা হয়ে দুজনের পক্ষে বেঁচে থাকা অসম্ভব হয়ে পড়ে।

 

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

38163260
Users Today : 1320
Users Yesterday : 5456
Views Today : 4111
Who's Online : 73
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/
Design & Developed BY Freelancer Zone