সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:৩৪ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
দিশার প্রেমিক রোহনকে ধরলেই বেরোবে জোড়া মৃত্যুর রহস্য: দাবি যুবরাজের নাজিরপুরে অগ্নিকান্ডে বসতঘর ভস্মিভুত ক্ষয় ক্ষতি ৫ লক্ষ টাকা বকশীগঞ্জে আন্তর্জাতিক তথ্য অধিকার দিবস পালিত বকশীগঞ্জে নবাগত ইউএনওকে ফুলেল শুভেচ্ছা প্রদান সাঁথিয়ায় মুক্তিযোদ্ধা সংসদের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিন পালন পূজা-দিঘী কে কোন কলেজে ভর্তি হলেন? প্রতিদিন ৫০ টন ইলিশ বিক্রি হয় মাওয়ায় বিপদসীমার উপরে ধরলার পানি, তলিয়ে গেছে ১৮ হাজার হেক্টর জমির ফসল বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে শায়িত হলেন মাহবুবে আলম নুসরাত ফারিয়ার ‘হট’ ভিডিও, সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড়! ভিডিও ভাইরাল দেশের বাহিরে গিয়েই ‘ছোট পোশাকে’ নুসরাত ফারিয়া যৌনতায় ভরা স্ক্রিপ্ট নিয়ে লাক্স তারকার বাসায় পরিচালক ৩ সেকেন্ডের ভিডিওতে নেট দুনিয়ায় ঝড় তুললেন সানি লিওন করোনাভাইরাস দেশে একদিনে ৩২ মৃত্যু, বেড়েছে আক্রান্ত যুক্তরাষ্ট্রে স্ত্রীকে হত্যার পর প্রবাসী বাংলাদেশির আত্মহত্যা

নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় আইনের কঠোর ব্যাবস্হা গ্রহণে প্রধানমন্ত্রী বরাবর বাদিনীর আকুতি

বিরামপুর(দিনাজপুর)প্রতিনিধি-মোঃ রেজওয়ান আলী-দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলার নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় বিবাদীর প্রতি কঠোর শাস্তি প্রদানে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবর বাদিনীর আকুতি যাহা বাদিনীর অভিযোগ সূএ মতে জানা যায়।

সূএ মতে তিনি জানান,বাদিনী লাকি আক্তার ২০১৬ ইং সনে নবাবগঞ্জ উপজেলার জয়পুর গ্রামের মোঃ একরামুল হকের ছেলে বাবুল আক্তারুজ্জামানের সহিত ১,৫৫০০০(এক লক্ষ্য পন্ঙ্চান্ন হাজার টাকা),দেন মোহরে ১,০০০০০(এক লাখ টাকা) নগদ যৌতুক প্রদানে বিবাহ হয়।
বিবাহ হওয়ার পর থেকেই তার উপর বাঁকি যৌতুকের ২,০০০০০(দূই লক্ষ্য টাকা)তার পিতার বাড়ি থেকে এনে দেয়ার জন্য চরম ভাবে চাপ সৃষ্টি করেন। এক পর্যায়ে তার উপরে শারিরীক ও মানসিক নির্যাতনের মাত্রা বাড়িয়ে যায়।
কিন্তু বাদিনী তার সংসার স্হায়ী করণের লক্ষ্যে কোথাও কোন প্রকার অভিযোগ না করে দিনের পর দিন তাদের অত্যাচার সহ্য করে আসছিলেন।
এক পর্যায় বাদিনীর গর্ভে একটি সন্তানের প্রাদূর্ভাব ঘটে।

এমন অবস্থায় পারিবারিক কলহের জের ধরে বিবাদী বাদিনীকে তার গর্ভের সন্তানটি নষ্ট করতে বললে সে রাজী না হওয়ায় বিবাদী আইনের কোন প্রকার তোয়াক্কা না করে তার পেটে স্বজোরে লাথি মারে এতে বাদিনীর রক্ত ক্ষরণ শুরু হয়। দিনের পর দিন বাদিনীর উপর শারিরীক ও মানসিক নির্যাতনের মাত্রা বাড়িতে থাকে।
ঘটনাটি ৮ই ডিসেম্বর ২০১৮ ইং তারিখ সকাল অনুমান ০৮ঃ০০ ঘটিকার সময়।  এমতাবস্হায় বিবাদী তাকে ফুলবাড়ি উপজেলা স্বাস্হ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসেন। কিন্তু দূঃখের বিষয় তার পেটের সন্তানটি নষ্ট হয়ে যায়।
তার পরও বাদিনী কোন প্রকার অভিযোগ না করে ৬মাস তারই সংসারেই সময় অতিবাহিত করেন। বাদিনী পূনরায় সন্তান গর্ভে ধারন করিতে চাইলে বিবাদী তার উপর ক্ষিপ্ত হয়ে লাথি কিল ঘুসি মারিতে  থাকেন ঘটনার এক পর্যায়ে বাড়ি থেকে বের করে দেন।
কয়েকদিন পরেই জানা যায় তার অজান্তে বিবাদী বাদিনীকে এক তরফা তালাক প্রদান করেছেন। এমন অবস্থায় বাদিনী নিরুপায় হয়ে দিনাজপুর আদালতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল (সংশোধন /০৩)আইনের ১১(গ)/৩০ ধারা সহ তৎসহ বাঃ দঃ বিঃ ৩১৩ ধারা মোতাবেক মামলা নং-২৪, তাং-২১-০৭-২০১৯ ইং তারিখ বিশেষ ট্রাইব্যুন্যালে মামলা দ্বায়ের করেন।
আদালতের (১ম আইও),এস,আই,তফিজ উদ্দিন,(২য় আইও)এস,আই,আলতাফ হোসেন মামলার তদন্ত রিপোর্ট প্রদান করেন।
নবাবগঞ্জ থানার তদন্ত কর্মকর্তাএবং উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা (আর,এমও) বাদি পক্ষের মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে বাদিনীর বিপক্ষে মিথ্যা বানোয়াট তদন্ত রিপোর্ট প্রদান করে আইনের অবমাননা করেন।
তিনি বলেন যে কর্মকর্তাগন টাকার বিনিময়ে মিথ্যা রিপোর্ট তৈরি করতে পারেন তাদের বিরুদ্ধে আইনগত কঠোর ব্যবস্হা গ্রহণ করার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নিকট জোর দাবি জানান। সেই মুহুর্তে বাদিনী দিনাজপুর আদালতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ ট্রাইব্যুনালে মামলাটির তদন্ত রিপোর্ট মিথ্যা এবং বানোয়াট মর্মে নারাজি আবেদন  দাখিল করেন।
মামলা চলমানে কোভিট-১৯,করোনা ভাইরাসের কারণে মামলাটির পূর্ণ কার্যক্রম স্থগিত হয়ে যায়।
আরও প্রকাশ থাকে যে,মামলা চলাকালীন সময়ে মামলা শেষ না হতেই বিবাদী ২র্য়বার আর একটি বিবাহ করেন যাহা তার পূর্ব থেকে সাজানো একটি ছক ছিল তাহা প্রতিয়মান হয়।
তারা সকলে বাদিনী কে তার সংসার হতে বিতাড়িত করার জন্য এমন একটি পরিকল্পনা করেন। তিনি আকুল আবেদনে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী সংবাদ মাধ্যমে শেখ হাসিনার নিকট এমন সংবাদটি পেশ করেন যাতে করে তার উপরে যে রকম নির্যাতন হয়েছে এবং সরকারি কর্মকর্তাগন আইনের অবমাননা করেছেন তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্হা গ্রহণের জোর দাবি জানিয়েছেন।
এ বিষয়ে অত্র জয়পুর নামক গ্রাম বাসির নিকট জানতে চাইলে তারা বলেন বিবাদী পক্ষ্য আইন অমান্য কারি ব্যক্তি তারা পারেন না এমন কাজ নেই। বিবাদী বাদিনীর উপর অন্যায় ভাবে নির্যাতন করেছেন তার বিরুদ্ধে আইনগত কঠোর ব্যবস্হা নেওয়া প্রয়োজন বলে দাবি জানান।
বর্তমানে বিবাদী মামলা তুলে নেওয়ার জন্য বিভিন্ন ভাবে ভয় ভিতি প্রদর্শন ও হুমকি প্রদান করছেন।
তার বিরুদ্ধে আইনগত কঠোর ব্যবস্হা গ্রহণে বাংলাদেশ সরকারের আইনের প্রতি সকলের শ্রদ্ধার মান বাড়িয়ে জনগনের মাঝে প্রকাশ হলে দেশে আর এমন নারী নির্যাতনের স্বীকার থেকে অনেক নারী রেহায় পাবে মর্মে প্রত্যাশা করেন।

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

37513466
Users Today : 5367
Users Yesterday : 6006
Views Today : 13910
Who's Online : 82
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/
Design & Developed BY Freelancer Zone