সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ০৯:২৮ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
হাজী সেলিমের হাতে জিম্মি লালবাগ? হাজী সেলিমের ঘটনায় ক্ষুদ্ধ সরকার! অপরাজিত এক মুসলিম ফাইটারের অশ্রুসিক্ত বিদায় মর্গ্যানের বিপক্ষে টস জিতল রাহুল, কলকাতা হারলেই বাদ চরমোনাই পীরের নেতৃত্বে ফ্রান্স দূতাবাস ঘেরাওয়ের ঘোষণা প্রোটিয়া ক্রিকেট থেকে সবার পদত্যাগের সিদ্ধান্ত আমি মুহাম্মাদকে (সা.) ভালোবাসি, লেখা মাস্ক পরে ঘুরছেন এমপি বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপের সেরা ‘পাঁচ’ ব্যাটসম্যানের তালিকায় আছেন যারা গাবতলী কাগইলে বিভিন্ন দূর্গাপূজা মন্ডপে আর্থিক অনুদান দিলেন আ’লীগ নেতা রশিদ রৌমারী সীমান্তে ৪০প্যাকেট ধানবীজ আটক বকশীগঞ্জে আলহাজ গাজী আমানুজ্জামান মডার্ন কলেজে একাডেমিক ভবনের নির্মাণ কাজ উদ্বোধন বকশীগঞ্জে অনলাইন ক্লাসের সুবিধা পেতে শিক্ষার্থীদের মাঝে স্মার্ট ফোন বিতরণ বিরামপুরে সারদীয় দূর্গা পূঁজা মন্ডপ পরিদর্শনে মাস্ক,শাড়ী লুংঙ্গি ও আর্থিক সহযোগিতা প্রদানে মালেক মন্ডল সাঁথিয়ায় অনলাইন নিউজ পোর্টাল ইছামতি নিউজ২৪.কম’র উদ্বোধন করলেন এমপি আত্রাইয়ে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে শেষ হলো শারদীয় দুর্গোৎসব

বিশ্বে আসছে ভয়ংকর দুর্ভিক্ষ, ৩ কোটি মানুষের মৃত্যু হবে!

ঢাকা: ভয়ঙ্কর দুর্ভিক্ষ আসছে পৃথিবীতে। চরম খাদ্য সংকট দেখা দেবে বিশ্বে। ক্ষুধায় মরবে কোটি মানুষ। মারাত্মক বিপর্যয়ের মুখে গোটা মানবজাতি। করোনা মহামারীর শুরু থেকেই বারবার এই হুশিয়ারিই দিয়ে আসছিল জাতিসংঘ। এবার আরও স্পষ্ট করে সতর্ক করল পুরো মানবসমাজকে।

শুক্রবার (১৮ সেপ্টেম্বর) জতিসংঘের খাদ্য অধিদফতর ওয়ার্ল্ড ফুড প্রোগ্রাম ডব্লিউএফও’ র প্রধানের আবগঘন বক্তব্যে সেই আহবানই জানান।

সংস্থাটির আশঙ্কা, অবিলম্বে সাহায্যের হাত না-বাড়ালে অন্তত ৩ কোটি মানুষের মৃত্যু হবে স্রেফ না খেতে পেয়ে। বিশেষ করে আফ্রিকা এবং মধ্যপ্রাচ্যে প্রকট আকার ধারন করবে এ দুর্ভিক্ষ। এএফপি।

ভয়ানক এ পরিস্থিতি মোকাবেলায় এখন থেকেই বিশ্বের বড় বড় ধনকুবেরদের কাছে হাত পাতছে জাতিসংঘ।

‘ওয়ার্ল্ড ফুড প্রোগ্রাম’ (ডব্লিউএফও)-র পর্যবেক্ষণ অনুযায়ী, বিশ্বের ২৭ কোটি মানুষ খাদ্য সঙ্কটের মুখে পড়তে চলছেন। এভাবে চললে এই বছরের শেষেই ১৩ কোটি ৮০ লক্ষ মানুষ খাদ্যাভাবের কবলে পড়বেন। এই পরিস্থিতিতে জাতিসংঘের খাদ্য বিভাগের প্রধান ডেভিড বিসলি আজ ধনকুবেরদের কাছে সাহায্যের আবেদন জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, ‘দু’বেলা দু’মুঠো খাবারের অভাবে মৃত্যুমুখে দাঁড়িয়ে থাকা ওই ৩ কোটি মানুষকে বাঁচাতে বছরে অন্তত ৪৯০ কোটি ডলার সাহায্য প্রয়োজন।’

জাতিসংঘের খাদ্য বিভাগের প্রধান আরও জানান, বিশ্বে অন্তত দু’হাজার বিলিওনিয়র (অন্তত একশো কোটি ডলারের মালিক) রয়েছেন। তাঁদের মোট ধনসম্পদ, বার্ষিক আয় যোগ করলে ৮ লক্ষ কোটি ডলারেরও বেশি।

বিসলি আরও বলেন, ‘এই মহামারী পরিস্থিতিতেও অনেকে কোটি কোটি ডলার কামিয়েছেন। কেউ বিপুল অর্থ উপার্জন করতেই পারেন। তাতে আমার কিছু বলার নেই। কিন্তু মানব সভ্যতা এক ভয়াবহ বিপর্যয়ের মুখে। এমন পরিস্থিতি আমরা অনেকেই জীবদ্দশায় দেখিনি।’

ডব্লিউএফপির প্রধানের দাবি খুব ভুল নয়। গত জুন মাসে ‘ইন্সটিটিউট ফর পলিসি স্টাডিজ়’-এর রিপোর্টে লেখা হয়েছে, মহামারী পরিস্থিতি শুরু হওয়ার পরে মার্কিন কোটিপতিদের মোট ধনসম্পদ অন্তত ১৯ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে (৫০ হাজার কোটি ডলার)।

আমাজ়ন-মালিক জেফ বেজোসের কথাই ধরা যাক। রিপোর্ট বলছে, ১৮ মার্চ আমেরিকায় লকডাউন শুরু হওয়ার ১১ সপ্তাহের মধ্যে বেজোসের ৩৬২০ কোটি ডলার ধনসম্পদ বৃদ্ধি পায়। ফেসবুকের প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জাকারবার্গেরও সম্পত্তি বেড়েছে ৩০১০ কোটি ডলার। টেসলার সিইও এলন মাস্কের ১৪১০ কোটি ডলারের সম্পদ-বৃদ্ধি হয়েছে।

বিসলি বলেন, ‘যাঁদের কাছে অগাধ আছে, এটাই সময়, তাঁদের এগিয়ে আসার। এই মুহূর্তে আপনাদের প্রয়োজন। সঠিক কাজ করে দেখানোর এটাই সময়।’

ডব্লিউএফপির প্রতিবেদন বলাছে, কঙ্গোতে ক্ষুধার সঙ্গে যুদ্ধ করছে প্রায় দেড় কোটি মানুষ। নাইজেরিয়ায় ৪০-৬০ লাখ মানুষ খাদ্য অনিশ্চয়তায়। ইয়েমেনে ৩০ লাখ মানুষ এখনও অনাহারে। আরও ২০ লাখ মানুষ একবেলা খাবার গ্রহনের সামর্থ্যও হারিয়ে ফেলবে শিগগিরিই।

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

37677821
Users Today : 8529
Users Yesterday : 8769
Views Today : 23783
Who's Online : 78
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/
Design & Developed BY Freelancer Zone