Home / ঢাকা বিভাগ / মৃত্যুর পর জানা গেলো ছেলের করোনা নেগেটিভ, ৪৩ দিন পার হয়ে গেলেও  লাশ নিলো না আপন বাবা!

মৃত্যুর পর জানা গেলো ছেলের করোনা নেগেটিভ, ৪৩ দিন পার হয়ে গেলেও  লাশ নিলো না আপন বাবা!

করোনায় যেমন বিশ্ব জুড়ে অর্থনৈতিক সংকট দেখা দিয়েছে, তেমন দিন দিন মানবিক মূল্যবোধ ও হারাতে বসেছে মানুষ। করোনা চোখে আংগুল  দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে কে আপন আর কে পর?

করোনার উপসর্গ নিয়ে ত্রিশাল উপজেলার চরপাড়া গ্রামের আরাফাত নামের এক কিশোরকে গত ২০শে এপ্রিল তার বাবা ভর্তি করেন ময়মনসিংহ নগরীর এস কে (সূর্য কান্ত) হাসপাতালে। ভর্তির দু’দিন পর ২২শে এপ্রিল চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় আরাফাত হোসেন (১৭)। কিন্তু করোনা সন্দেহের কারণে লাশ নেয়নি পরিবার।

জানা যায়, আরাফাত ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার চরপাড়া এলাকার চড়ুইতলা গ্রামের মজনু মিয়ার সন্তান। গত ২০ এপ্রিল করোনাভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে সে নগরীর এসকে হাসপাতালে ভর্তি হয়। এর দুই দিন পরই সে মারা যায়। মৃত্যুর পর তার শরীর থেকে নমুনা নিয়ে পরীক্ষা করা হলে ফলাফল নেগেটিভ আসে। এরপরও মৃত আরাফাতের মরদেহ তার পরিবার গ্রহণ না করায় মরদেহ ৪৩ দিন ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের হিমঘরে রাখা হয়।

এদিকে, মৃত্যুর ৪২ দিন পর বুধবার আরাফাতের বাবা কোতোয়ালী থানায় লিখিতভাবে লাশ গ্রহণে অনিচ্ছার কথা জানান। পরিবার এবং এলাকাবাসীর নিরাপত্তার কথা ভেবে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে আবেদনপত্রে উল্লেখ করা হয়।

কোতোয়ালী মডেল থানা পুলিশের এসআই আনোয়ার হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, আরাফাতের বাবার এক আবেদনের প্রেক্ষিতে লাশ দাফনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে।

ত্রিশাল থানার ওসি মাহমুদুল হাসান জানান, মজনু মিয়া ত্রিশালের ঠিকানা ব্যবহার করলেও তার ছেলে থাকতো ফুলবাড়িয়ার আছিম গ্রামে পুলিশ বিষয়টি খতিয়ে দেখছে।

নিউজটি লাইক দিন ও আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

About jahir

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

নড়াইলের লোহাগড়ায় করোনা উপসর্গে পুলিশ কর্মকর্তার মৃত্যু

নড়াইলের লোহাগড়ায় করোনা উপসর্গে পুলিশ কর্মকর্তার মৃত্যু  উজ্জ্বল রায়, নড়াইল জেলা প্রতিনিধিঃ নড়াইলের লোহাগড়ায় করোনা ...