সোমবার, ০৮ মার্চ ২০২১, ১১:২৬ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
১৬ বছরেও পচেনি লাশ, কাফনের কাপড়ও অক্ষত দেশে প্রথম ট্রান্সজেন্ডার সংবাদ পাঠক তাসনুভা শিশির আহসানউল্লাহ মাস্টারসহ ১০ ব্যক্তি-প্রতিষ্ঠান পাচ্ছেন স্বাধীনতা পুরস্কার আটকের পরেই সু চির দলীয় নেতার মৃত্যু চট্টগ্রামে ছাত্রলীগের দুগ্রুপের সংঘর্ষে একজন নিহত আজ ৮ মার্চ আন্তর্জাতিক নারী দিবস বাংলাদেশীদের জন্য যুক্ত হচ্ছে নতুন শ্রমবাজার মাদাগাস্কার কোন বৌদিকে পটাতে হলে জিজ্ঞাস করুন এই কথাগুলি, সে আপনার ওপর দুর্বল হয়ে উঠবে নারী স্বামীর সম্পত্তি নয় যে অনিচ্ছা সত্ত্বেও একসঙ্গে থাকতে হবে,,সুপ্রিম কোর্ট এসআই, সার্জেন্ট ও কনস্টেবল পদে নিয়োগ পরীক্ষায় ব্যাপক পরিবর্তন মদ্যপ স্ত্রী মিলনে রাজি না হওয়ায় স্বামীর গোপনাঙ্গ কর্তন নানা আয়োজনে খানসামা উপজেলায় ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ জাতীয় দিবস পালন ভাষণ দিবস আছে, কিন্তু বাস্তবায়ন নেই : মোমিন মেহেদী বঙ্গবন্ধু প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন মধ্য দিয়ে ইসলামপুরে ৭মার্চ উদযাপন প্রাইমএশিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ-২০২১ উদ্যাপন

শিশু ধর্ষণ মামলার বাদীকে হত্যার অভিযোগ

কক্সবাজারে রামুর গর্জনিয়ায় তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণ মামলার বাদী শিশুটির বাবাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে আসামিপক্ষ হত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তিনি মারা যান। বুধবার (১৩ জানুয়ারি) রাতে তাকে ডেকে নিয়ে পেটে খুন্তি ঢুকিয়ে আহত করা হয়।

নিহত মুহাম্মদ ইউনুছ (৩৭) রামুর গর্জনিয়ার গলাছিরা দোছরি এলাকার মরহুম কালাম বকসুর ছেলে।

স্বজনদের বরাত দিয়ে শুক্রবার (১৫ জানুয়ারি) বিকেলে এ তথ্য জানিয়েছেন বাদীপক্ষের আইনজীবী আমান উল্লাহ আমান।

আমান উল্লাহ আমান জানান, বুধবার (১৩ জানুয়ারি) রাত ৯টার দিকে মুহাম্মদ ইউনুছকে ‘জরুরি কাজের’ জন্য ডেকে বাড়ির উঠানেই পেটে খুন্তি ঢুকিয়ে মারাত্মক আহত করে ধর্ষণ মামলায় আসামি জয়নাল আবেদিনের বড় ভাই মোহাম্মদ ইলিয়াছ (৩৫)। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে প্রথমে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে, পরে চমেক হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

তিনি আরো জানান, ২০১৮ সালের ১৩ আগষ্ট দুপুরে দুই বান্ধবী স্কুল থেকে ফেরার পথে দোছরি গলাছিরা কবিরার পাহাড় নামক স্থানে পৌঁছালে মোহাম্মদ শাহীন ও জয়নাল আবেদিন পার্শ্ববর্তী জঙ্গলে নিয়ে ধর্ষণ করে। স্থানীয়রা দুই বান্ধবীকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে। পরে তাদের কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালের ওসিসিতে ভর্তি করা হয়। সেখানেই তাদের চিকিৎসা চলে।

এ ঘটনায় তৃতীয় শ্রেণিতে পড়ুয়া ওই শিশুর বাবা ২৬ আগষ্ট কক্সবাজার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে মামলা করেন। মামলার একমাত্র আসামি জয়নাল আবেদিন (২২) বর্তমানে কারাবন্দি। আদালতের নির্দেশে মামলাটি তদন্ত করে চট্টগ্রাম বিভাগীয় সিআইডি। তদন্তে ঘটনার সত্যতা মেলে। আদালতে প্রতিবেদনও জমা দিয়েছেন সংশ্লিষ্ট তদন্ত কর্মকর্তা। ১৩ জানুয়ারি আদালতে বাদিপক্ষের সাক্ষ্য গ্রহণ শুরু হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

38370690
Users Today : 2312
Users Yesterday : 2978
Views Today : 6738
Who's Online : 23
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/