শনিবার, ০৬ মার্চ ২০২১, ০৮:৪৯ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
অভিযোগ সাবেক ইউএনও’র বিরুদ্ধে: বন্ধ নির্মাণকাজ অভয়নগরে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর গৃহহীনদের বসতঘর নির্মাণে অনিয়ম বেনাপোলে ৫কেজি ভারতীয় গাঁজা সহ মাদক ব্যবসায়ী আটক বেনাপোলে বাস-প্রাইভেট মুখোমুখি সংঘর্ষে আহত-৫ সাপাহারে হাঁপানিয়া সীমান্তে বিজিবির হাতে আটক-১০ আজীবন সদস্য সম্মাননা পেলেন নাট্যব্যক্তিত্ব মামুনুর রশীদ ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ৫০তম বর্ষে কবি নির্মলেন্দু গুণের কবিতা থেকে গান উদ্বোধন খানসামায় সাদা সোনা খ্যাত রসুনের বাম্পার ফলন হলেও দাম নিয়ে শঙ্কায় চাষীরা রৌমারীতে বিনামূল্যে কৃষকদের মাঝে ‘পাওয়ার থ্রেসার’ বিতরণ বেনাপোল স্থলবন্দরের অন্যতম সংগঠনের নির্বাচনে ভোট গ্রহন চলছে শান্তিপূর্ণ ভাবে পলাশবাড়ীতে স্ত্রী’র কন্যা সন্তান হওয়ায় ১৪ দিনের মাথায় তালাকপ্রাপ্তা স্ত্রী’কে বিয়ে. অতঃপর মহাসড়কের পার্শ্বে ওজন কেন্দ্র হবে এমন খবরে বাড়ী নির্মাণের হিড়িক ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রী’র বাংলাদেশ আগমনের প্রতিবাদ- আধিপত্য প্রতিরোধ আন্দোলন শিবগন্জ ফেরিঘাটে চাঁদাবাজী সিরিয়া সংকট বদলে দিতে পারে মধ্যপ্রাচ্য ও বিশ্ব রাজনীতির প্রেক্ষাপট বঙ্গবন্ধুর এবারের সংগ্রাম…

স্ত্রীর অবৈধ মেলামেশা দেখে ফেলায় কাল হলো ইদ্রিসের, আদালতে জবানবন্দি

ডেস্ক: স্ত্রীর পরকীয়া দেখে ফেলায় মানিকগঞ্জে ইদ্রিস নামে এক যুবককে হত্যা করা হয়েছে। মামলার আসামি ড্রেজার ব্যবসায়ী মো. ফরহাদ হোসেন (৪৫) মঙ্গলবার (১২ ডিসেম্বর) বিকেলে মানিকগঞ্জ ৪নং সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট পারভেজ আহমেদের আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন।

 

জবানবন্দিতে ফরহাদ বলেন, নিহত রিকশাচালক ইদ্রিস আলীর স্ত্রীর সঙ্গে ফরহাদের সম্পর্ক ছিল। তার স্ত্রীর সঙ্গে একাধিকবার অবৈধ মেলামেশা হয় তার। ঘটনা হাতেনাতে ধরে ফেলেন ইদ্রিস আলী নিজেই। এরপর থেকে শত্রুতা সৃষ্টি হয়। পরে ইদ্রিস আলীকে (৫০) পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়।

গত ৪ জানুয়ারি রাতে পরিকল্পিতভাবে ইদ্রিস আলীকে পার্শ্ববর্তী আন্ধারমানিক গ্রামের অতুল মণ্ডলের পতিত জমির নির্জন স্থানে নিয়ে হত্যা করা হয়। হত্যার পর ফরহাদ নিজের চারজন প্রতিপক্ষের মোবাইল নম্বর ইদ্রিস আলীর পকেটে রেখে যান। হত্যার পর ওই দিনই ইদ্রিস আলীর ছেলে নয়ন হোসেন বাদী হয়ে সদর থানায় হত্যা মামলা করেন।

পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) টুটুল জানান, আসামি ফরহাদ ও তার এক সহযোগী মিলে গলায় মাফলার পেঁচিয়ে এ হত্যার ঘটনা ঘটায়। মৃত্যু নিশ্চিত হওয়ার পর হত্যাকারীরা পালিয়ে যায়।

ফরহাদের সঙ্গে স্থানীয় চার ইয়াবা কারবারির বিরোধের জের ধরে তাদের ফাঁসাতে ওই চারজনের মোবাইল নম্বর নিহত রিকশাচালকের পকেটে ঢুকিয়ে দেন। পরে ওই এলাকার রাস্তার পাশের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে ও প্রযুক্তি ব্যবহার করে ঘটনার ছয় দিনের মাথায় আসামি ফরহাদকে আটক করে পুলিশ।

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

38364849
Users Today : 6359
Users Yesterday : 5133
Views Today : 23688
Who's Online : 47
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/