বৃহস্পতিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ০৭:০২ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
লক্ষ্মীপুরে রাজকীয়ভাবে পুলিশ সদস্যের বিদায় লক্ষ্মীপুরে নদী পাড়ের অসহায়দের মাঝে কম্বল বিতরণ হাইকমান্ডের সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় লক্ষ্মীপুর জেলাবাসী ৫৩ বছরের সালমানের বউ হতে চান ২১ বছরের এই হিট নায়িকা শ্বশুরের সাথে রাত কাটাতে বাধ্য হয় শাহবিনা জনগণের সঙ্গে খারাপ আচরণের কোনো সুযোগ নেই: আইজিপি আমি আর মামী শু’য়ে আছি হ’ঠাৎ দেখি বাবা এসে মামীকে না খেয়ে থাকতে পারলেও শারীরিক সম্পর্ক ছাড়া থাকতে পারবেন না ফর্সা হতে না পেরে ফেয়ার এন্ড লাভলী কোম্পানির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করল এই 22 বছরের কিশোরী.. গাবতলীর উজগ্রামে সাবেক এমপি লালু’র ৬৭তম জন্মদিন উপলক্ষে দোয়া মাহফিল পিরোজপুরে ভূমি উন্নয়ন কর ব্যবস্থাপনা সফটওয়্যার (৩য় পর্যায়) পাইলটিং এর প্রশিক্ষণ প্রদান উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চাই ইউপি চেয়ারম্যান মতিন করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৩৮ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ২১৯৮ শীর্ষ আলেমদের বৈঠকের ডাক হেফাজতের, মাঠে নামতে দেবে না আ.লীগ দ্বিতীয় ধাপে ৬১ পৌরসভায় ভোট ১৬ জানুয়ারি

হাজী সেলিমের বিরুদ্ধে খেলার মাঠ দখল করে তালা লাগানোর অভিযোগ

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) ২৯ নম্বর ওয়ার্ডে কোনো খেলার মাঠ নেই। মাঠ না থাকায় স্থানীয় সরকারি একটি খাস জমিকে মাঠ হিসেবে ব্যবহার করে আসছিল শিশু-কিশোররা। তবে তিন বছর ধরে ওই জায়গাটিতে আর খেলার ব্যবস্থা নেই। তালা দিয়ে রাখা হয়েছে সরকারি জমিটি।

স্থানীয়দের অভিযোগ, ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্য হাজী সেলিম এক বছর আগে নিজ হাতে এ জায়গায় তালা মেরে দেন।

পুরান ঢাকার পোস্তা মোড়ে হাজী সেলিমের বাড়ি ও তার প্রধান রাজনৈতিক কার্যালয়। এই ভবনটি থেকে পূর্ব দিকে ৫০ গজ গেলে হাতের ডান দিকে খালি পড়ে আছে একটি জমি। যার গেইটে একটি সাইনবোর্ড লাগানো। তাতে লেখা- ‘খেলাধূলার মাঠ। এলাকার জনস্বার্থে খেলাধূলার জন্য উন্মুক্ত দেয়া হলো ফুটবল ও ক্রিকেট খেলার মাঠ।’

তবে কে বা কারা ও কবে এই সাইনবোর্ড লাগিয়েছে তা স্পষ্ট নয়। স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, বেশকিছু ক্ষমতাবান লোক এবং সংগঠন এ জায়গাটিকে নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নেয়ার চেষ্টা করেছিল। তাই স্থানীয় বাসিন্দারা কয়েক বছর আগে এই সাইনবোর্ড লাগিয়েছে।

তারা জানান, স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় এ জমির মালিক ছিল একটি হিন্দু পরিবার। এখানে ছিল সিলভারের তৈজসপত্র তৈরির কারখানা। পরিবারটি দেশ স্বাধীন হবার পর চলে গেলে জায়গাটি খালি পড়ে থাকে। দীর্ঘদিন খালি পড়ে থাকায় জায়গাটি চলে যায় সরকারি খাস জমির খতিয়ানে। খালি জায়গাটিতে খেলাধূলা শুরু করে স্থানীয় শিশু-কিশোররা। স্বাধীনতার পর থেকে স্থানীয় দুই প্রজন্ম এ জায়গায় খেলাধূলা করেছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

এক বছরেরও বেশি সময় ধরে জায়গাটি তালাবদ্ধ থাকলেও সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে কথা বলার সাহস নেই কারও। তবে পরিচয় প্রকাশ না করার শর্তে সঙ্গে কথা হয়েছে স্থানীয় বেশ কয়েকজনের।

স্থানীয় একজন বাসিন্দা বলেন, ‘আমি এই মাঠে খেলছি। আমার পোলাপান খেলছে। এহন আর কেউ খেলতে পারে না। কয়েক বছর আগে এই জায়গায় একটা মুক্তিযোদ্ধা কার্যালয় করার পরিকল্পনা করছিল। সেটা বন্ধ করে পরে এখানে একটা রিকশা-ভ্যানগাড়ির গ্যারেজ বানানো হয়। সেটা দুই বছর ছিল। এক বছর আগে আমাগো এমপি সাহেব (হাজী সেলিম) নিজ হাতে এটার গেইটে তালা মেরে দিল।’

একজন চামড়া ব্যবসায়ী বলেন, ‘মাঠটা খুলে দিলে ভালো হয়। আমাদের পোলাপান খেলতে পারে। আমরা আপনাদের মাধ্যমে এমপি সাহেব, আমাদের কাউন্সিলর সাহেবের কাছে মাঠটা খুলে দেয়ার দাবি জানাই।’

একই তথ্য জানিয়েছে জায়গাটির সামনের কয়েকজন ব্যবসায়ী। এক দোকানি বলেন, ‘পোলাপান খেলত, এমপি সাহেব জায়গাটা বন্ধ করে দিছে। এখন আর খেলার ব্যবস্থা নাই। পোলাপান এখানে খেললে কার কী ক্ষতি? শুনছি, জায়গাটা দখল করে বিল্ডিং বানানোর প্লান করতেছে।’

কে বা কারা এ জায়গায় সাইনবোর্ড সেঁটেছেন বা তালা দিয়েছেন সে বিষয়ে স্পষ্ট কিছু বলতে পারেননি ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ২৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর জাহাঙ্গীর আলম বাবুল। তিনি বলেন, ‘এটা পরিত্যক্ত সম্পত্তি। কিছু লোক এখানে রিকশার গ্যারেজ করেছিল। কারা যেন খাইত। এটা আশপাশের লোকজনকে জিজ্ঞেস করলে জানতে পারবেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমার এখানে খেলার মাঠ নাই। আমি যেটুকু জানি, আমাদের ২৫ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মারা গেছেন। তার থেকে আমরা জেনেছিলাম। যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য এ জায়গাটা বন্দোবস্ত নেয়ার কথা ছিল। যে পর্যন্ত না আসে ততক্ষণ পর্যন্ত এটা সরকারি খাস জমি, গণপূর্তের আওতাধীন। সে ক্ষেত্রে কারা যেন বন্ধ করে রাখছে।’

খালি জায়গাটি শিশু-কিশোরদের খেলাধূলার জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া যায় কি-না জানতে চাইলে কাউন্সিলর বাবুল বলেন, ‘বাচ্চারা এখানে অবশ্যই খেলতে পারে। এলাকার লোকজন যদি আমার কাছে বা মেয়র সাহেবের কাছে আবেদন করে, তাহলে আমি এ জায়গাটা খুলে দিব। তারা যদি আসে, আমি এলাকার লোকজন নিয়ে, বাড়িওয়ালাদের নিয়ে এ জায়গাটা খুলে দিব।’

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

37908116
Users Today : 10464
Users Yesterday : 5163
Views Today : 32253
Who's Online : 141
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/
Design & Developed BY Freelancer Zone