শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০, ১০:৩৯ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
বাগেরহাটে মোরেলগঞ্জে কমিউনিটি পুলিশিং ডে পালিত সরতে শুরু করছে বন্দর থানা আ’লীগের আকাশে জমে থাকা কালো মেঘ বন্দর থানায় পুলিশিং ডে অনুষ্ঠিত বগুড়ায় হত্যা মামলার পলাতক আসামী ধরলো সিআইডি বগুড়ায় বিদ্যালয়ের নতুন ভবনের উদ্বোধন করলেন এমপি মোশারফ বেনাপোল স্থলবন্দর হ্যান্ডলিং শ্রমিকদের মধ্যে পরিচয়পত্র বিতরন পতœীতলায় সওজ কর্মকর্তার উপর হামলা, থানায় মামলা দায়ের সাঁথিয়ায় মৎস্যজীবীদের সাংবাদিক সম্মেলন গাইবান্ধায় ধর্ষণ মামলার আসামী গ্রেফতার ছাতকে কমিউনিটি পুলিশিং ডে উপলক্ষে থানা পুলিশের আলোচনা সভা বরিশালে কমিউনিটি পুলিশিং ডে পালন মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) কে নিয়ে ব্যঙ্গ চিত্র প্রদর্শনের প্রতিবাদে বিক্ষোভ মির্জা ফখরুল, মঈন খান, মাহমুদুর রহমান মান্নার অংশগ্রহণ দুর্বৃত্ত রাষ্ট্র নয় জনগণের রাষ্ট্র চাই .…….আ স ম রব খানসামায় নতুন উপজেলা স্বাস্থ্য ও প: প: কর্মকর্তার সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত খানসামায় সংবাদ সম্মেলন: বিএনপি’র আহ্ধসঢ়;বায়কের স্বাক্ষর জাল করে কমিটি গঠনের অভিযোগ

হিন্দু ব্রাহ্মণ নারী ব্যতীত অন্য কোনো হিন্দু নারী তার স্তনকে ঢেকে রাখতে পারবে না

পদ্ধনাভ মন্দিরে 😢😢
দক্ষিণ ভারতে নিয়ম ছিল যে হিন্দু ব্রাহ্মণ নারী ব্যতীত অন্য কোনো হিন্দু নারী তার স্তনকে ঢেকে রাখতে পারবে না। শুধুমাত্র ব্রাহ্মণ শ্রেণীর হিন্দু নারীরা তাদের স্তনকে এক টুকরো সাদা কাপড় দিয়ে ঢেকে রাখতে পারতো, বাকি হিন্দু শ্রেণীর নারীদেরকে প্রকাশ্যে স্তন উন্মুক্ত করে রাখতে হতো। আবৃত করতে হলে দিতে হবে স্তনশুল্ক অর্থাৎ শুল্কের বিনিময়ে কিনে নিতে হবে আত্মমর্যাদা ! শুল্কের পরিমাণ নির্ভর করবে স্তনের আকারের উপর! যার স্তন যতবড় তার শুল্ক তত বেশী !
এই স্তনশুল্কের মোটা অংশ চলে যেত পদ্মনাভ মন্দিরে ! গিনেস বুকের তথ্য অনুযায়ী, এটি পৃথিবীর সবচেয়ে ধনী মন্দির!
১৮০৩ সালে নাঙ্গেলী (Nangeli) নামক এক নিম্ন বর্ণের হিন্দু নারী তার স্তনকে আবৃত করে রাখে এবং “স্তন কর” দিতে অস্বীকৃতি জানায়। কিন্তু শুল্ক সংগ্রাহকের নজরে পড়ায় তারা শুল্ক দাবী করে ! অস্বীকৃত হয় নাঙ্গেলি ! শুল্ক সে দেবে না ! শুল্ক সংগ্রাহকরা অতিষ্ট করে তোলে নাঙ্গেলীকে! দিন দিন করের বোঝাও বাড়তে থাকে! অবশেষে কর দিতে রাজী হয় নাঙ্গেলি ! শুল্ক সংগ্রাহকরা তার থেকে স্তন কর চাইতে এলে , নাঙ্গেলী তাদের কিছুক্ষণ বসতে বলে। তারপর ধারালো অস্ত্র দিয়ে কেটে ফেলে তার স্তন দুটি ! শুল্ক সংগ্রাহকের হাতে শুল্কস্বরূপ তুলে দেয় কলাপাতার আবরণে রক্ত মাখা স্তন! অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে নাঙ্গেলির মৃত্যু হয় !
দক্ষিণ ভারতে নারীদের স্তন আবৃত করার জন্য বহু সংগ্রাম করতে হয়েছে। হিন্দু পুরোহিতরা স্পষ্ট করে বলে দেয়- নিচু বর্ণের নারীদের শরীরের উপরের অংশ আবৃত করা ধর্ম-বিরোধী। বিষয়টি নিয়ে ১৮৫৯ সালে দক্ষিণ ভারতে একটি দাঙ্গা সংগঠিত হয়। এই দাঙ্গার উদ্দেশ্য ছিলো হিন্দু নারীদের শরীরের উপরের অংশ আবৃত করার অধিকার আদায় করা। এই দাঙ্গা “কাপড়ের দাঙ্গা” হিসেবে পরিচিত। সংগৃহীত।

 

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

37724019
Users Today : 11422
Users Yesterday : 8809
Views Today : 36866
Who's Online : 116
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/
Design & Developed BY Freelancer Zone