মঙ্গলবার, ০৯ মার্চ ২০২১, ০৩:৫৯ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
নোয়াখালী সুবর্ণচরের বিএনপি নেতা এনায়েত উল্লাহ বি কম এর ইন্তেকাল নওগাঁর মহাদেবপুরে মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের গণকবর প্রাচীর দিয়ে সংরক্ষণের দাবি বীর মুক্তিযোদ্ধাদের শিক্ষা জাতীয় করন নিয়ে মনের কষ্ট ফেসবুকের মাধ্যমে ব্যক্ত করলেন অধ্যক্ষ এস এম তাইজুল ইসলাম কুলিয়ারচরে দিনব্যাপী ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উদযাপন ২৫ ও ২৬ মার্চ হত্যাকাণ্ড চালিয়েছিল জিয়া মমতাকে ছেড়ে আসা মিঠুন এখন মোদির দলে সন্তান কোলে নিয়েই দায়িত্ব সামলাচ্ছেন নারী ট্রাফিক পুলিশ স্ত্রীসহ করোনায় আক্রান্ত সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট আসাদ মিয়ানমারে রাস্তায় হাজারো হাজার লোকের বিক্ষোভ স্কুল শিক্ষককে বিয়ে করলেন বিশ্বের শীর্ষ ধনী নারী প্রতারণার মামলায় ডা. সাবরিনার জামিন আবেদন নামঞ্জুর চট্টগ্রামে প্রবাসী হত্যায় ৯ জনের মৃত্যুদণ্ড সামাজিক মাধ্যমে কুরুচিপূর্ণ লেখা সতর্ক করলেন প্রধান বিচারপতি নিবন্ধনধারীদের এমপিওভুক্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে নিয়োগের নির্দেশ ১৫ দিনের মধ্যে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধনধারীদের নিয়োগ

তাজরিন ট্র্যাজেডির নিহতদের স্বরণে শ্রমিক সংগঠনের শ্রদ্ধা নিবেদন

মুন্সী মেহেদী হাসান, সাভার :
শিল্পাঞ্চল আশুলিয়ায় পোশাক কারখানায়   স্মরণ কালের ভয়াবহ অগ্নিকান্ড,  তাজরিনের ফ্যাশন ট্র্যাজেডির ৭ বছর পূর্তিতে কারখানার সামনে নিহতদের স্মরণে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে নিহতের স্বজন, আহত শ্রমিক, ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার ও বিভিন্ন শ্রমিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ।
রবিবার সকাল হতেই আশুলিয়ার নিশ্চিন্তপুরের তাজরিন ফ্যাশনের সামনে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন তারা।
এর আগে কারখানার মালিক দেলোয়ার হোসেনের ফাঁসির দাবিতে স্লোগানে স্লোগানে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে অগ্নিকাণ্ডের একমাত্র স্মৃতি চিহ্ন হিসাবে দাড়িয়ে থাকা  তাজরিন ফ্যাশন ভবনটির সামনে জড়ো হতে থাকেন বিভিন্ন শ্রমিক সংগঠনের নেতাকর্মীরা। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে মানববন্ধন কর্মসূচি ও নিহতের আত্মার মাগফিরাত কামনায় দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।
এসময় নিহতের স্বজনদের অনেকেই প্রিয়জনের কথা স্মরণ করে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন।
মানববন্ধনে অংশ নিয়ে নিহত শ্রমিকদের স্বজন ও আহত শ্রমিকরা জানান, আজ তাজরিন ফ্যাশনে অগ্নিকান্ডের ৭ বছর পূর্ণ হলো। কিন্তু এতদিন পরেও ক্ষতিগ্রস্থদের পুর্নবাসন ও ক্ষতিপূরণ নিশ্চিত করতে পারেনি সরকার এবং বিজিএমইএ। এমতাবস্থায় পরিবার পরিজন নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছেন তারা।
বিভিন্ন শ্রমিক সংগঠনের নেতারা বলেন, ২৪ নভেম্বর কারখানা কতৃপক্ষ প্রধান ফটক আটকে দিয়ে ১১৩ জন শ্রমিককে ভেতরে পুড়িয়ে মেরেছিল। এটা একটা পরিকল্পিত হত্যাকান্ড। যা বিভিন্ন তদন্তেও প্রমাণ হয়েছে। কিন্তু সরকার এতদিনেও খুনি দেলোয়ারের শাস্তি নিশ্চিত করতে না পারায় সারা বাংলাদেশের শ্রমিকদের ভেতরে আগুন জ্বলছে। তাই অবিলম্বে খুনি দেলোয়ারের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি, শ্রমিকদের নিরাপদ কর্মপরিবেশ, ক্ষতিগ্রস্থদের ক্ষতিপূরণ ও পুনর্বাসন নিশ্চিতের দাবি জানান তারা।
এসময় বাংলাদেশ তৃণমূল গার্মেন্টস শ্রমিক কর্মচারী ফেডারেশন,  জাগো বাংলাদেশ গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন, বাংলাদেশ পোশাক শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন ফেডারেশন, গার্মেন্ট শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্র, বাংলাদেশ গার্মেন্টস এন্ড শিল্প শ্রমিক ফেডারেশন, বিপ্লবী গার্মেন্টস শ্রমিক সংহতি, দুর্ঘটনায় আহত শ্রমিকদের চিকিৎসা সহায়তা ট্রাষ্ট ও টেক্সটাইল গার্মেন্টস ওয়ার্কার ফেডারেশনসহ অন্যান্য শ্রমিক সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

38375232
Users Today : 1952
Users Yesterday : 4902
Views Today : 11622
Who's Online : 34
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/