Breaking News
Home / প্রশাসন / পুলিশ সুপার’র নির্দেশে নতুন প্রজন্মের জন্য বাসযোগ্য নড়াইল গড়ার প্রত্যয় সর্বদা কাজ করছে পুলিশ!!

পুলিশ সুপার’র নির্দেশে নতুন প্রজন্মের জন্য বাসযোগ্য নড়াইল গড়ার প্রত্যয় সর্বদা কাজ করছে পুলিশ!!

উজ্জ্বল রায় নড়াইল জেলা প্রতিনিধি■ (৩১,অক্টোবর) ২৭৪: \ নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার) নির্দেশে নতুন প্রজন্মের জন্য বাসযোগ্য নড়াইল গড়ার প্রত্যয় সর্বদা কাজ করছে পুলিশ: থানার অফিসার ইনচার্জ সকালে ৮টার সময় নড়াইলের নড়াগাতী থানার পহরডাঙ্গা এলাকায় বিদ্যমান গ্রুপদন্ধের মধ্যে বিদ্যমান বিরোধ নিরসন ও আইন শৃংখলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রের লক্ষ্যে অত্র থানায় সকল অফিসারসহ ফোর্সদের নিয়ে ব্যাপক অভিযান পরিচালনা করেন। নড়াইলের নড়াগাতী থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি আলমগীর কবীর পহরডাঙ্গা বাজারের ব্যাবসায়ী ও এলাকাবাসিদের সাথে মতবিনিময় করেন। তিনি বলেন,আমার থানা এলাকায় আইন শৃংখলা অবনতি কারী ব্যাক্তিদের কোন অন্যায়ের সুযোগ নেই সে যেই হোক,না কেন,কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না বলেও তিনি সবার উদ্দেশে বলেন। তিনি আরো বলেন আমার থানা এলাকায় যদি কোন প্রকার অন্যায় অনিয়ম কেউ করে তাহলে সাথে সাথে আমাকে ফোন করে জানাবেন,এবং আমার ব্যবহৃত সরকারী মোবাইল নম্বর সবাই নিয়ে যান। নড়াইল জেলা পুলিশ তথা আমাকে তথ্য দিবেন তাৎক্ষণিক পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে যাবে। তবে কেহ মিথ্যা তথ্য এবং গুজব ছড়াবেন না,মিথ্যা তথ্য ও গুজব ছড়ালে তার বিরুদ্ধে আইনি কঠর ব্যাবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান। নড়াইলের নড়াগাতী থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি আলমগীর কবীর বলেন, নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)’র নির্দেশে আমার থানা এলাকায় আইন শৃংখলা অবনতি কারী ব্যাক্তিদের ছাড় দেওয়া হবে না অপরদিকে, আধিপত্তর বিস্তরকে কেন্দ্র করে একজন কৃষককে কুপিয়ে আহত করেছে প্রতিপক্ষরা। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে প্রথমে হাসপাতাল ও পরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। পুলিশ ও এলাকাবাসি সুত্রে জানা গেছে, নড়াইলের দিঘলিয়া ইউনিয়নের দিঘলিয়া দক্ষিন পাড়া খালচর গ্রামের আব্দুস ছাত্তার মোল্যার ছেলে মোরাদ মোল্যা (৪০) পাওনা টাকা আদায়ের জন্য গতকাল পার্শ্ববর্তী লুটিয়া বাজারে যান। সেখান থেকে তিনি বাড়িতে ফিরছিলেন। আমাদের নড়াইল জেলা প্রতিনিধি উজ্জ্বল রায়, জানান, এলাকায় আধিপত্ত বিস্তর ও পূর্ব শত্রুতার জের ধরে একই ইউনিয়নের কুমড়ি পূর্বপাড়ার টুকু শেখ (কটা) ছেলে আজাদ কটার নেতৃত্বে ইনদা, সাদ্দাম,আশরাফ, সাজ্জাদ, লিপন ও রাজিবসহ ৮-১০ জন লুটিয়া বাজারের পাশে তার পথরোধ করে। এরপর হামলাকারীরা রামদা ও চা-পাতি দিয়ে কুপিয়ে তাকে গুরুত্বর জখম করে পালিয়ে যায়। মোরাদের বাম হাত ও বাম পায়ে গুরুত্বর জখম হয়েছে বলে জানা যায়। ওই এলাকায় আওয়ামীলীগের বিবাদমান দু’টি পক্ষ রয়েছে। একটির নেতৃত্বে রয়েছেন ইউপি চেয়ারম্যান নীনা ইয়াসমিন। অপরটি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি অহিদ সরদার। মোরাদ মোল্যা নীনা ইয়াসমিন পক্ষীয় লোক বলে জানা যায়। হাসপাতালের কর্তব্যরত ডাক্তার রিপন কুমার ঘোষ বলেন, রোগীর বাম হাতের হাঁড় কেটে হাত চামড়ার সাথে ঝুলে থাকায় খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে। নড়াইলের লোহাগড়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোকাররম হোসেন জানান, গতকাল হামলার সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। অভিযোগের ভিত্তিতে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। অপরদিকে, মাধবপাশা গ্রামের মৃত ওহাব শেখের ছেলে আবুল কালাম আজাদ কালাম (৪৫)কে একই গ্রামের কতিপয় সন্ত্রাসীরা একটি মাদ্রাসার কমিটি গঠনকে কেন্দ্র করে নড়াইলে জেলার মাধবপাশা বাজার থেকে ২৭ অক্টোবর রাতে খুন করার উদ্দেশ্যে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। তাকে অজ্ঞান অবস্থায় নড়াইলের হাসপাতলে জরুরী বিভাগে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার অবস্থা আশঙ্কা জনক হওয়ায় উন্নতমানের চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে। নড়াইলে চলতি মাসে এসপি’র সাহেবের নির্দেশে বিপুল পরিমান ইয়াবা গাজাসহ মাদক ব্যবসায়ী ও জুয়াড়ি গ্রেপ্তার: দিবাগত গভীর রাতে অভিযান চালিয়ে ইয়াবা ট্যাবলেটসহ একজন চিহ্নিত ইয়াবা ব্যবসায়ীকে আটক করেছেন। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)’র গোপন সংবাদের ভিত্তিতে থানার এস আই আতিকুজ্জামান ও মিল্টন কুমার দেবদাসের নেতৃত্বে একদল পুলিশ অভিযান চালিয়ে নড়াইলের জেলার লাহুড়িয়া ইউনিয়নের কালিগঞ্জ বাজারের বাগান বিশ্বাসের চায়ের দোকানের সামনে থেকে চুনু মিয়া(৩৫)কে ৫০পিস ইয়াবাসহ আটক করেন। আটককৃত চুন্নু মিয়া নড়াইলের লাহুড়িয়ার প্রসন্নপাড়ার ওহাব শেখের ছেলে। সে দীর্ঘদিন ধরে ইয়াবা বেচাকেনা করে আসছিল। এ ঘটনায় থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। নড়াইলের লোহাগড়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোকাররম হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ধৃত আসামীকে সকালে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করা হবে। আমাদের নড়াইল জেলা প্রতিনিধি উজ্জ্বল রায় জানান, অপরদিকে, চলতি মাসে, নড়াইলে পর শফিকুল ইসলাম (৩৮) ওরফে ধলা ডাকাতকে আটকের দু’ই দিন পর এবার গ্রেফতারী পরোয়ানাভূক্ত জাহিদ তালুকদার (২৫) ওরফে জহিদ ডাকাত সর্দার কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। দিবাগত রাত ভোর ৪ টার দিকে থানার লোহার গাতী এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়। জাহিদ নড়াইলের কালিয়া উপজেলার কলাবাড়িয়া ইউনিয়নের লোহারগাতি গ্রামের ওলিয়ার তালুকদারের ছেলে। আমাদের নড়াইল জেলা প্রতিনিধি উজ্জ্বল রায় জানান, তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় ডাকাতি আইনে ৩ টি মামলা রয়েছে। পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার) বলেন, ডাকাত জাহিদ তালুকদার গ্রেফতারী পরোয়ানাভূক্ত আসামী থানার লোহারগাতি এলাকায় অবস্থান করছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান করে তাকে আটক করে করা হয়েছে। এর আগে, ডাকাত সর্দার শফিকুল ইসলাম (৩৮) ওরফে ধলাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গভির রাতে নড়াইলের নড়াগাতি বড়দিয়া এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানা ডাকাতি, ছিনতাই অস্ত্র, দ্রুত বিচার ও মাদক আইনে ৯ টি মামলা রয়েছে। নড়াইলের নড়াগাতি থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আলমগীর কবীর বলেন, নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) সারের গোপন সংবাদের ভিত্তিতে দিবাগত গভীর রাতে অভিযান পরিচালনা করে, ডাকাত জাহিদ তালুকদার গ্রেফতার ও শফিকুল ইসলাম ওরফে ধলা ডাকাত সর্দারকে গ্রেফতার হয়। জেলা ডিবি থানা পুলিশের বিশেষ অভিযানে ১০০পিচ ইয়াবা সহ আটক ১ জন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে গোপালগঞ্জের কুখ্যাত মাদক ব্যবসায়ী মো: ফরিদ শেখ(৫০)পিং মৃত আফজাল শেখকে ১০০পিচ ইয়াবা সহ আটক করে, আসামি ফরিদ শেখ দীর্ঘদিন ধরে নড়াইলে ইয়াবা বেচা কেনা করে আসছিল, থানা পুলিশ জানাই তার নামে নিয়মিত মামলা রজুকরে তাকে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে, বিশেষ অভিযান চালিয়ে ৬ কেজি গাঁজাসহ মাদক ব্যাবসায়ী দুই ভাই জেলা ডিবি পুলিশের হাতে আটক নড়াইল জেলা ডিবি পুলিশের বিশেষ অভিযান চালিয়ে নড়াইলের কালিয়ার বড় কালিয়া মৎস্যপট্টি থেকে ছয় কেজি গাঁজাসহ ২ ভাই কে আটক করেছে। গত দিবা রাত ১২টার দিকে তাদের আটক করা হয়। আটক কৃতরা হলো,বড় কালিয়া মৎস্যপট্টি বাজার এলাকার দুলাল জমাদ্দারের দুই ছেলে বিপ্লব (৫৫) ও অসিম (৪৫)। ডিবি পুলিশের এস,আই সৈয়দ জমারত জানান,গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সঙ্গীও ফোর্সসহ বড় কালিয়া মৎস্যপট্টি এলাকা থেকে ৬ কেজি গাজাঁসহ দুই ভাই কে আটক করতে সক্ষম হই। নড়াইল জেলাই মাদক বিরোধী অভিযানের অংশ হিসেবে ডিবি পুলিশ অভিযান চালিয়ে ছয় কেজি গাঁজাসহ দুই মাদক কারবারিকে আটক করেছে। নড়াইলকে মাদকমুক্ত করতে সবার সহযোগিতা প্রয়োজন বলেও তিনি জানান। নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার), কে মাদক মুক্ত করার জন্য সাধারণ জনগণ খোঁজখবর দিন। নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার), নড়াইলে যোগদান করার পর থেকেই নড়াইলে অপরাধ প্রবণতা অনেকাংশে কমে গেছে। সেই সাথে তাঁর নিয়মিত মাদকবিরোধী অভিযানের ফলে নড়াইল এখন প্রায় মাদকশূন্য। এছাড়া জঙ্গি ও সন্ত্রাস শব্দটি নড়াইলে বিলুপ্তপ্রায়। এ সময় পুলিশ কর্মকর্তাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সদ্য পদোন্নতিপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম, (পিপিএম), অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল), নড়াইলের চার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাবৃন্দ, নড়াইল জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাসহ নড়াইল জেলা পুলিশের সকল ইউনিটের ফোর্সবৃন্দ। জঙ্গিবাদ ও মাদক মাথা চাড়া দিয়ে উঠেতে না পারে কাজ চলমান থাকবে বলেও তিনি জানান। এর আগে \ পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)’র নির্দেশে জুয়া খেলার সাড়াশী অভিযানে নেমেছেন নড়াইল জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ডিবি’র এস আই সৈায়দ জামারত আলী সহ ডিবি পুলিশের বিভিন্ন ইউনিট নিয়ে। নড়াইলের পেড়লী ইউনিয়নের জামরিল ডাঙ্গা বাজার এলাকা অভিযান চালায় এ সময় জুয়া খেলা অবস্থায় জুয়াখেলা সরঞ্জাম ও নগদ টাকাসহ ৬ জুয়ারী কে গ্রেফতার করে করেছে নড়াইল গোয়েন্দা পুলিশ ডিবি। গ্রেফতার করে নড়াইলের কালিয়া থানায় সোপর্দ করা হয়। এস আই আরো বলেন, জুয়ারীদের উপরে সাড়াশী অভিযান চালানোর ধারাবাহিকতায়,আমাদের এসপি স্যারের নির্দেশনায় নড়াইল জেলা সকল জুয়া ও ক্যাসিনো নামক স্থানে আমরা নিয়মিত অভিযান চালিয়ে জুয়ারীদেরকে আটক করে। নড়াইলে কোন জুয়া খেলা হতে দেয়া হবে না বলেও আমাদের নির্দেশ দিয়েছেন এসপি স্যার। নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)’র নির্দেশ, নড়াইল সদর থানার একাধিক মাদক মামলার পলাতক সোনাতন বিশ্বাস সোনা (৩৫) পিতা মৃত ভরত বিশ্বাস’র ছেলে নড়াইল সদর উপজেলার পুরাডাঙ্গা থেকে ১০ পুরিয়া গাজা সহ গ্রেফতার করে নড়াইল জেলা ডিবি পুলিশের একটি চৌকশ টিম। আমাদের নড়াইল জেলা প্রতিনিধি উজ্জ্বল রায় জানান, নড়াইলের নলদী ইউনিয়নের মিঠাপুর এলাকা থেকে ৪ জন জুয়ারু কে-তাস, নগদ টাকা ও জুয়া খেলার সরঞ্জামাদিসহ গ্রেপ্তার করে। ডিবি পুলিশের পৃথক অভিযানে ডিবি পুলিশের এস আই সৈায়দ জামারত আলী ও এ এস দুরানত আনিস, ডিবি পুলিশের ক; বাবু নারায়ন, ক; বাবু মোহন কèুডু সহ আরো কয়জন। ডিবি পুলিশের এস আই, জানান, পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)’র গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমরা এ অভিযান চালায় বিল ডুমুরতলা গ্রাম থেকে গাঁজাসহ গ্রেপ্তার করি। এ বিষয়ে নড়াইল সদর থানায় মাদক মামলা রুজু করা হয়েছে। এছারাও পৃথক স্থানে অভিযান চালিয়ে ১৪৮ পিস ইয়াবা ও পনের গ্রাম গাঁজাসহ মোট ৮ জন চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে। পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে থানার পুলিশের মুরগী পট্টি থেকে ৫০ পিস ইয়াবাসহ নড়াইলের কাশিপুর ইউনিয়নের পদ্মবিলা গ্রামের শাহিন শেখের ছেলে সাজ্জাদ শেখকে আটক করেন। পরে তার স্বীকারোক্তিতে ঝিকড়া গ্রাম থেকে সবুর শেখের ছেলে তরিকুল শেখকে ২ পিস ইয়াবাসহ এবং তার সহযোগী সোহাগ শেখকে আটক করেন। অপরদিকে নড়াইলের দিঘলিয়া বাজারে অবস্থিত সরদার ফার্মেসীতে অভিযান চালিয়ে গ্রাম্য চিকিৎসক মজনু সরদারকে ৪১ পিস ও জুবায়ের খানকে ২৫পিস ইয়াবাসহ আটক করে। অপর অভিযানে ১৫ গ্রাম গাঁজাসহ পৌর এলাকার আসলাম জমাদ্দারকে আটক মদিনাপাড়া থেকে সন্ধ্যা ছয়টার দিকে ৩০ পিস ইয়াবাসহ আটক করেন। নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার), জানান এ ঘটনায় থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে পৃথক ৫টি মামলা দায়ের করে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়। এছাড়াও থানা পুলিশ রাতে অভিযান চালিয়ে নগদ টাকা ও জুয়া খেলার সরঞ্জাম, ছয় জুয়াড়ি ও ইয়াবা ট্যাবলেটসহ এক মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে। ওই ঘটনায় জুয়া ও মাদক আইনে পৃথক দু’টি মামলা দায়ের করা হয়েছে। পুলিশ জানায়, দিবাগত রাত ১১টার দিকে নড়াইলের কালিয়া থানার একদল পুলিশ জেলার বেন্দা গ্রামের আকবর মোল্যার বাড়িতে অভিযান চালিয়ে ৭হাজার ৮৯৫টাকা ও জুয়া খেলার সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে। এছাড়াও নড়াইলের কালিয়া উপজেলার ছোট কালিয়া গ্রামের উকিল মোল্যার ছেলে রফিকুল মোল্যা (৪৫),একই গ্রামের সুনিল রায়ের ছেলে উদয়শংকর রায় (৩০),ও মৃত শরীয়াতুল্লার ছেলে ছিদ্দিকুর রহমান (৫০), বড়নাল গ্রামের মৃত রাজ্জাক মল্লিকের ছেলে রবি মল্লিক(৪৫), রামনগর গ্রামের মৃত রবীন্দ্র নাথ বিশ্বাসের ছেলে নির্মল বিশ্বাস (৪০) ও রুলনা জেলার ডুমুরিয়া উপজেলার ফুকরা মেছধামা গ্রামের মৃত আলী মিয়া সরদারের ছেলে গফ্ফার সরদারকে (৫০) আটক করেছে। অপরদিকে ওই দিন সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টার দিকে একই থানা পুলিশ পৃথক অভিযান চালিয়ে বড় নড়াইলের কালিয়া খেয়াঘাট থেকে ১০পিচ ইয়াবা ট্যাবলেটসহ নড়াইলের কালিয়া উপজেলার বাহিরডাঙ্গা গ্রামের মৃত ইন্তাজ মোল্যার ছেলে মাদক ব্যবসায়ী নান্নু মোল্যাকে (৩৮) আটক করেছে। পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার), আরো জানান নড়াইলের সকলকে, ইয়বা, জঙ্গি, সন্ত্রাস, ইভটিজিং ও বাল্যবিবাহ রোধে একযোগে কাজ করার উদাত্ত আহ্বান জানান। সকল প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা রোধে সকলকে কঠোর নজরদারি রাখার জন্যও নির্দেশনা প্রদান করেন। তিনি আরও বলেন, পুলিশ ক্ষমতার বলে কাউকে কোনো প্রকার হয়রানি না করে সেদিকেও খেয়াল রাখতে হবে। কারো বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ পাওয়া গেলে তাকে কঠোর শাস্তি পেতে হবে বলেও হুশিয়ারি প্রদান করেন।

Please follow and like us:
error

About jahir

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

কুড়িগ্রামে ৮ম শ্রেণির ছাত্রী ও পল্লী চিকিৎসককে হত্যার আসামীদের গ্রেফতার করতে সক্ষম হওয়ায় জেলা পুলিশের সংবাদ সম্মেলন

আনোয়ার হোসেন, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি : তারিখ-১৯.১১.১৯ইং কুড়িগ্রামের রৌমারীর আলোচিত ৮ম শ্রেণির ছাত্রী ...