Breaking News
Home / রাজশাহীর সংবাদ / ফারুক চৌধূরীকে মন্ত্রীসভায় দেখতে চাই

ফারুক চৌধূরীকে মন্ত্রীসভায় দেখতে চাই

আলিফ হোসেন তানোর
বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটি ঘোষণার পর রাজশাহী অঞ্চলে আওয়ামী লীগের বিশ¯ত্ত-আদর্শিক-পরীক্ষিত এবং মূলধারার নেতা ও কর্মী-সমর্থকদের হৃদয়ে রক্তক্ষরণ হচ্ছে। রাজশাহী-১ ভিআইপি এই সংসদীয় আসনে আওয়ামী লীগ দলীয় সাংসদ, রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি, সাবেক শিল্প প্রতিমন্ত্রী এবং শহীদ পরিবারের সন্তান রাজনৈতিক সহাবস্থানের প্র্বর্তক, সৎ রাজনৈতিকের প্রতিকৃতি ও বর্নাঢ্য রাজনৈতিক জীবনের অধিকারী, জাতীয় চার নেতার অন্যতম শহীদ এএইচএম কামরুজ্জামান হেনার দৌহিত্র (ভাগ্নে) গণমানুষের নেতা আলহাজ্ব ওমর ফারুক চৌধূরীকে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম বা কেন্দ্রীয় কমিটিতে দেখতে না পাওয়ায় এসব নেতা ও কর্মী-সমর্থকদের হৃদয়ে রক্তক্ষরণের সূত্রপাত হয়েছে। রাজশাহী অঞ্চলের মানুষ গণমানুষের নেতা এমপি ফারুককে আগামি দিনে মন্ত্রীসভায় দেখতে চাই, কেবলমাত্র মন্ত্রী সভায় স্থান দেয়া হলেই এসব নেতা ও কর্মী-সমর্থকদের হৃদয়ে রক্ত ক্ষরণ প্রশমিত হবে। পরিচ্ছন্ন ব্যক্তি ইমেজ, পারিবারিক ঐতিহ্য-সামাজিক পরিচিতি, আর্থিক স্চ্ছালতা, জনবল বা কর্মীবাহিনী, রাজনৈতিক দূরর্শীতা, সাংগঠনিক তৎপরতা, আদর্শিক ও বিশ্বস্তত নেতৃত্ব হিসেবে প্রেসিডিয়াম-কেন্দ্রীয় কমিটি বা মন্ত্রী সভায় স্থান পাবার মতো সব যোগ্যতা ও সক্ষমতা রয়েছে ফারুক চৌধূরীর। ইতমধ্যে রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক কাউন্সিলে ব্যক্তি স্বার্থকে জলাঞ্জলী ও দলীয় স্বার্থকে প্রাধান্য দিয়ে সভাপতি পদে বিনা প্রতিদন্দ্বীতায় তার বিজয় নিশ্চিত এটা জেনেও তিনি নিজে সভাপতি প্রার্থী না হয়ে বিতর্কমুক্ত একটি সুন্দর কমিটি উপহার দিয়ে তিনি তার রাজনৈতিক দূরদর্শীতার পরিচয় দিয়েছেন। রাজনৈতিক পর্যবেক্ষক মহলের অভিমত ফারুক চৌধূরী আওয়ামী লীগের কত বড় সম্পদ সেটা তার আওয়ামী লীগে আশার আগে ও আশার পরে রাজশাহী অঞ্চলের আওয়ামী লীগের রাজনৈতিক অবস্থান পর্যালোচনা করা হলেই সেটার বাস্তব প্রমাণ পাওয়া যাবে এটার জন্য রাজনৈতিক বিশেষঞ্চ হবার প্রয়োজন নাই। ফলে এই সম্পদ অক্ষত ও ধরে রাখতে তাকে মন্ত্রীসভায় স্থান তেবার কোনো বিকল্প নাই।
রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন ৮ ডিসেম্বর রোববার সম্পন্ন হয়েছে। সম্মেলনে সাবেক (ভারপ্রাপ্ত) সভাপতি ও সাবেক সাংসদ মেরাজ উদ্দিন মোল্লাকে সভাপতি ও সাবেক সাংসদ কাজী আব্দুল ওয়াদুদ দারাকে সাধারণ সম্পাদক করে বিতর্কমুক্ত একটি সুন্দর কমিটি উপহার দেয়া হয়েছে যার সিংভাহ কৃতিত্ব এমপি ফারুক চৌধূরীর বলে একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে। রাজশাহী জেলা আওয়ামী লীগের দায়িত্বশীল একটি সূত্র জানায়, নতুন কমিটি ঘোষণার পর রাজশাহী আওয়ামী লীগে রাজনৈতিক অঙ্গনে বেঈমান ও বির্তকিত নেতৃত্বের অবসান ঘটেছে বলে আলোচনা রয়েছে। অপরদিকে আদর্শিক ও বিশ¯ত্ত নেতৃত্ব ফারুক চৌধূরী প্রেসিডিয়াম বা কেন্দ্রীয় কমিটিতে না থাকায় তৃণমূলে নেতা ও কর্মী-সমর্থকদের হৃদয়ে রক্ষক্ষরণ হচ্ছে অনেককে অশ্র“সজল দেখা গেছে। রাজশাহী আওয়ামী লীগের তৃণমূলের দাবি এমপি ফারুক যেকোনো রাজনৈতিক দলের কাছে একটি বিশাল সম্পদ তায় তারা এই সম্পদ ধরে রাখতে আগামি দিনে তাকে মন্ত্রীসভায় স্থান দেয়ার জন্য দলের সভাপতি, বঙ্গবন্ধু কন্যা, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও জননেত্রী শেখ হাসিনার কাছে আকুল আবেদন করেছেন বলে একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে।

Please follow and like us:
error

About jahir

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

আত্রাইয়ে শীতার্তদের পাশে আস্থা

নাজমুল হক নাহিদ, আত্রাই(নওগাঁ) প্রতিনিধি: সমাজে শীতার্ত, অসহায় ও দরিদ্র মানুষদের হার ...