মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১, ০৭:৪৬ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
৭টি বৈশাখী ছড়া জঙ্গিনেতা মামুনুল হককে  গ্রেফতার – হেফাজতে ইসলামকে নিষিদ্ধ ও জঙ্গি সংগঠন ঘোষণা করুন: কমিউনিস্ট পার্টি(মার্কসবাদী) বিশেষ প্রয়োজনে ব্যাংক খোলা রাখার নির্দেশ সকাল সাড়ে ৯টা থেকে দুপুর দেড়টা পর্যন্ত ব্যাংক খোলা চাঁদ দেখা গেছে, বুধবার থেকে রোজা ঢাবি মেডিকেল সেন্টার আধুনিকায়ন করে শহীদ বুদ্ধিজীবী ডা. মোর্তজার নামে নামকরণের দাবি পণ্য বিপণনে সমস্যা হলে ফোন করুন জরুরি সেবায় ধর্মীয় নেতাকে গ্রেপ্তারের ঘটনায় উত্তাল পাকিস্তান, গুলিতে নিহত ২ সাংবাদিকদের ‘মুভমেন্ট পাস’ লাগবে না খাদ্যপণ্যের বিজ্ঞাপনে একগুচ্ছ নিষেধাজ্ঞা আসছে, থাকছে জেল-জরিমানা হাতে বড় একটি ট্যাবলেট ফোন নিয়ে ডিজিটাল জুয়ার আসরে ব্যস্ত তরুণ-তরুণী রমজানের নতুন চাঁদ দেখে বিশ্বনবী যে দোয়া পড়তেন ফরিদপুরে চাের সন্দেহে গণপিটুনীতে একজন নিহত এটিএম বুথ থেকে তোলা যাবে এক লাখ টাকা যৌবন দীর্ঘস্থায়ী করে যোগ ব্যায়াম ‘শশাঙ্গাসন’

লেখাটি ছেলেদের জন্য, প্রেগন্যান্সি সময়কালীন স্ত্রীর মুখে একজন আদর্শ স্বামীর গল্প শুনুন…

আজ হঠাৎ মনে পড়ে গেল আমার প্রেগন্যান্সি সময়ের কথা। ভালবাসতো সবসময়ই; কিন্তু ঐ সময়টাতে একটু বেশী কেয়ার নিতো।

সবার আড়ালে এনে আমাকে রেখেছিল যেন কেউ আমাকে কষ্ট না দিতে পারে, কটু কথা না শোনাতে পারে, কারো দুর্ব্যবহারে যেন গোপনে আমার অশ্রু ঝরে না পড়ে। আমার বাবা মা ও শশুর শ্বাশুড়ি থেকে ও দূরে।

একদিন তরকারী রান্না করে তিনদিন খেতাম ডিপে রেখে রেখে। সে ভাত, ডিম, আলুভর্তা এগুলো করতে পারতো। সকালে ঘুম থেকে উঠে কিচেনের টুংটাং শব্দ শুনতাম। আম্মু মাঝেমাঝে রান্না করে দিয়ে যেতো। প্রথম তিন মাস তো খুবই কষ্ট হতো। আমার মুখ থেকে একটা শব্দ শুনলেই সে ভয় পেয়ে ছুটে আসতো। মাথার কাছে ফলমূল ও খাবারের বহর সাজিয়ে রাখতো।

প্রচুর পানি খেতাম তাই হাফ লিটারের ৪/৫ টা বোতল পানি রাখতো; যেন বোতল তুলতে কষ্ট না হয়। একটু পরপর এসে দেখে যেতো আমি কেমন আছি। পানি শেষ হল কিনা! আর কিছু খেতে ইচ্ছে করছে কিনা! যখন বমি করতাম সামনে বালতি ধরে রাখতো। মুখ মুছিয়ে দিয়ে বুকে চেপে ধরতো।

বলতো যদি জানতাম তোমার এতো কষ্ট হবে তাহলে বেবি চাইতাম না। আমি হেসে বলতাম, বেবি তো আমরা দুজনেই চাই। আর কষ্ট কি আমি পাচ্ছি? তুমি ও তো পাচ্ছো। একদিন দেখি খুব খুশী মনে বাসায় এসে বলছে বউ, তুমি আজ থেকে বিছানায় বসে ফ্যান লাইট অফ/অন করবে। নো ওঠা উঠি। তারপর ছোট একটা রিমোট দেখালো যদিও ওটা সেট করতে অনেক ঝামেলা হয়েছিল।

আরেকদিন দেখি ফ্লোর ম্যাট ও রুম হিটার নিয়ে হাজির,, বললাম রুম হিটার তো বুঝলাম ফ্লোর ম্যাট কেন?? জিদ ধরলাম, এত সুন্দর টাইলসের উপর এটা বিছানো যাবেনা। বলল, ভুলে যদি তোমার পা ফ্লোরে পড়ে ঠান্ডা লেগে যাবে। মনে পড়ে আমার নামাজের আগে জায়নামাজ বিছিয়ে চেয়ার রেডি করে রাখতো।

শীত শেষে বসন্ত এলো সাথে সাথে এসি ও এলো আমার রুমে যেন গরম আমাকে কষ্ট না দিতে পারে। মনে করে প্রতিবেলা ওষুধ খুলে খাওয়াতো। আমি আস্তে আস্তে কিচেনে ঢুকতাম রান্নার জন্য যেন এসে বকাবকি শুরু না করে। কিন্তু সে কোন শব্দ পেলেই ছুটে আসতো। বলতো উহুহ!! চুলা থেকে দূরে থাকো, তুমি শুধু দূরে দাড়িয়ে বল কতটুকু কি দিতে হবে, আমি রান্না করবো।

এতক্ষণ যার কথা বলছিলাম সে আমার প্রাণপ্রিয় স্বামী… প্রিয় ভাইজান রা… বউকে নিয়ে তো অভিযোগের শেষনেই।।। ভালোবেসেছেন এভাবে কখনো!! নিজের সবকিছু ছেড়ে আপনার কাছে থাকে বউ।

আপনার ও আপনার সন্তানদের দেখভাল করে অথচ আপনার কি উচিত নয়, হাতদুটো ধরে স্ত্রীর চোখের দিকে তাকিয়ে কেমন আছো বউ’ জানতে চাওয়া, খেয়েছে কিনা খবর নেয়া, কোন কষ্ট পেলে তা দূর করা, সুখে দুঃখে তাঁর পাশে থাকা… ।

Please Share This Post in Your Social Media

দেশের সংবাদ নিউজ পোটালের সেকেনটের ভিজিটর

38444163
Users Today : 1118
Users Yesterday : 1256
Views Today : 14660
Who's Online : 48
© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/
Design And Developed By Freelancer Zone