শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ১১:১৩ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
পুলিশকে চাঁদা দিয়ে না খেয়ে রোজা রাখলেন রিকশাওয়ালা ১৩৫ বছর বয়সেও খালি চোখে কোরআন তেলাওয়াত করেন সিলেটের তৈয়ব আলী আরকান আর্মি তিন সদস‍্য বান্দরবানে অনুপ্রবেশে সময় সেনাবাহিনীর হাতে আটক। আলীকদমে অন্তর্বর্তীকালীন পাঠপরিকল্পনা বাস্তবায়ন ও শিক্ষকদের মাঝে আইডি কার্ড বিতরণ চট্টগ্রামে তারাবি শেষে মসজিদে মুসল্লির মৃত্যু লক্ষ্মীপুরে কালভার্টের ইট-রড খুলে নিলেন চেয়ারম্যান! লক্ষ্মীপুরে কর্মরত দুই পুলিশ কর্মকর্তার পদোন্নতি খালেদা জিয়াকে বিদেশে নিতে ‘মৌখিক অনুমতি’ পাওয়া গেছে লিবিয়ায় মাদারীপুরের ২৪ যুবককে নির্যাতন, ভিডিও পাঠিয়ে টাকা দাবি একাত্তর টিভির সেই রিফাত সুলতানার পরে শ্বশুর-শাশুড়িও চলে গেলেন বোনের বিয়েবার্ষিকী অনুষ্ঠানের ৯২ হাজার টাকা বিল দেন মুনিয়া! গোদাগাড়ী পৌরসভার উপ-নির্বাচনে মেযর পদে লড়তে চাই মনির বেনাপোল পৌর ছাত্রলীগের উদ্যোগে ২শ’ পথচারী ও দুস্থদের মাঝে ইফতার বিতরণ পলাশবাড়ীতে গাঁজা চাষ,মালিক আটক সাদুল্লাপুরের প্রধান শিক্ষক সাময়িক বরখাস্ত

৬০ ক্যাসিনোর নিয়ন্ত্রক ২৫ জনের নাম বললেন খালেদ, তালিকায় রয়েছেন সম্রাটও

ডেস্ক: শীর্ষ সাত যুবলীগ নেতাসহ ঢাকায় ৬০টি ক্যাসিনোর নিয়ন্ত্রক ২৫ জনের নাম বলেছেন রিমান্ডে থাকা ঢাকা মহানগর যুবলীগের (দক্ষিণ) সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ মাহমুদ ভুঁইয়া। এদের মধ্যে কেউ কেউ ইতিমধ্যে দেশ ছেড়ে পালিয়েছে।

জিজ্ঞাসাবাদকারী পুলিশের একটি সূত্রের বরাত দিয়ে দৈনিক ইত্তেফাকে প্রকাশিত আজকের একটি প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, খালেদ যাদের নাম বলেছেন তাদের মধ্যে রয়েছেন, যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির দফতর সম্পাদক কাজী আনিসুর রহমান, যুবলীগ ঢাকা দক্ষিণের সভাপতি ইসমাইল হোসেন চৌধুরী সম্রাট, যুবলীগের সহসভাপতি এনামুল হক আরমান, সহসভাপতি সোহরাব হোসেন স্বপন, সহসভাপতি সরোয়ার হোসেন মনা, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোমিনুল হক সাঈদ, নির্বাহী সদস্য জাকির হোসেন, ছাত্রলীগ ঢাকা মহানগর উত্তরের সাবেক সভাপতি এস এম রবিউল ইসলাম সোহেল, বাড্ডা থানা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম, ইমরানসহ ২৫ জন।

খালেদ ছাড়াও রাজধানীর মিন্টো রোডে ডিবি কার্যালয়ে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে যুবলীগ নেতা দাবিকারী জি কে শামীম ও ধানমণ্ডির কলাবাগান ক্লাবের সভাপতি ও কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় নেতা শফিকুল আলম ফিরোজকে। গতকাল সোমবার তাদেরকে পৃথকভাবে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে।

ক্যাসিনোর পাশাপাশি গণপূর্তের ঠিকাদারি নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে ঠিক কত কোটি টাকা কামিয়েছেন জি কে শামীম ও যুবলীগ নেতা খালেদ, তার হিসাব নিতেই গোয়েন্দাদের আস্ত একটা নোটবুক শেষ হয়ে যাচ্ছে।

তারা এরই মধ্যে নামে বেনামে, স্বজনদের নামে বিভিন্ন ব্যাংকে রাখা শত শত কোটি টাকার তথ্য দিচ্ছে। এর মধ্যে জি কে শামীমকে জিজ্ঞাসাবাদে মিলেছে ৩০০ কোটি টাকার তথ্য। আর খালেদের শত কোটি টাকার ওপরে।

সেই সঙ্গে জিজ্ঞাসাবাদে তারা বলছেন, যুবলীগের শীর্ষ পর্যায়ের কোন কোন নেতা তাদের টাকার ভাগ পেতেন।

Please Share This Post in Your Social Media


বঙ্গবন্ধু কাতরকণ্ঠে বলেন, মারাত্মক বিপর্যয়

বঙ্গবন্ধু কাতরকণ্ঠে বলেন, মারাত্মক বিপর্যয়

https://twitter.com/WDeshersangbad

© All rights reserved © 2011 deshersangbad.com/
Design And Developed By Freelancer Zone